যবিপ্রবিতে আরও দুটি বিভাগের শিক্ষা কার্যক্রম শুরু হচ্ছে

Share:

(যশোর, ৭ আগস্ট, ২০১৯): পরিবর্তিত বিশ্বের সঙ্গে শিক্ষার সমন্বয় ও দক্ষ গ্রাজুয়েট তৈরির লক্ষ্যে যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে (যবিপ্রবি) ২০১৯-২০ শিক্ষাবর্ষে ‘ক্লাইমেট অ্যান্ড ডিজাস্টার ম্যানেজমেন্ট’ এবং ‘নার্সিং অ্যান্ড হেল্থ সায়েন্স’ নামে আরও দুটি বিভাগের শিক্ষা কার্যক্রম শুরু হচ্ছে।

 

ইতোমধ্যে বিভাগ দুটি বাংলাদেশের বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর নিয়ন্ত্রক সংস্থা বাংলাদেশ বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরী (ইউজিসি) অনুমোদনও দিয়েছে। এ দুটি বিভাগের শিক্ষা কার্যক্রম শুরু হলে যবিপ্রবিতে সাতটি অনুষদে অধীনে বিভাগের সংখ্যা হবে ২৬টি।  


বিভাগ দুটির সিলেবাস, পাঠ্যক্রম তৈরিসহ অন্যান্য কার্যক্রম সুষ্ঠাভাবে সম্পন্ন করতে ইতোমধ্যে ‘ক্লাইমেট অ্যান্ড ডিজাস্টার ম্যানেজমেন্ট’-এর চেয়ারম্যান হিসেবে নিয়োগ পেয়েছেন পরিবেশ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি (ইএসটি) বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক ড. মো: মাহফুজুর রহমান এবং ‘নার্সিং অ্যান্ড হেল্থ সায়েন্স’ বিভাগের চেয়ারম্যান হিসেবে নিয়োগ পেয়েছেন অণুজীববিজ্ঞান বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক ড. মো: তানভীর ইসলাম।  


ড. মো: মাহফুজুর রহমান ‘ক্লাইমেট অ্যান্ড ডিজাস্টার ম্যানেজমেন্ট’ বিভাগটি খোলার বিষয়ে বলেন, বিশ্বে জলবায়ু পরিবর্তনের সাথে সাথে দুর্যোগের পরিমাণ বেড়ে গেছে। আমাদের ঘনবসতিপূর্ণ দেশ এবং দুর্যোগপ্রবণ দেশ। এটাকে ম্যানেজ করতে গেলে আমাদের দক্ষ জনশক্তি দরকার, এই উদ্দেশ্যে যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বি বিদ্যালয়ে আগামী শিক্ষা বছর থেকে ‘ক্লাইমেট অ্যান্ড ডিজাস্টার ম্যানেজমেন্ট’ বিভাগের কার্যক্রম শুরু হচ্ছে। 


ড. মো: তানভীর ইসলাম ‘নার্সিং অ্যান্ড হেল্থ সায়েন্স’ বিভাগ খোলার বিষয়ে জানালেন, বাংলাদেশ সরকারের সেবা পরিদপ্তরের অধীনে বিভিন্ন ইনস্টিটিউটে এবং নার্সিং কলেজগুলোতে ডিপ্লোমা ইন নার্সিং বা বিএসসি ইন নার্সিং চালু রয়েছে। এ ছাড়াও কিছু প্রাইভেট প্রতিষ্ঠানেও বিএসসি ইন নার্সিং পড়ার সুযোগ রয়েছে। তারপরও উন্নত বিশ্বের সাথে তাল মিলিয়ে নার্সিং বিষয়ে বিশ্বমানের গ্রাজুয়েট তৈরি করা এখন সময়ের দাবি বলে আমরা মনে করি। সেই লক্ষ্যকে সামনে রেখেই ২০১৯-২০ শিক্ষাবর্ষে ছাত্র-ছাত্রী ভর্তি করানোর মাধ্যমে যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় সর্বপ্রথম কোনো পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় হয়ে ভূমিকা রাখতে যাচ্ছে। এই বিভাগের চেয়ারম্যান হিসেবে আমি সকলের কাছে সার্বিক সহযোগিতা কামনা করছি।


বার্তা প্রেরক 

 

মো: আব্দুর রশিদ

জনসংযোগ কর্মকর্তা

যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়,

যশোর-৭৪০৮।

Useful Links

JUST. Copyright © 2019. All Rights Reserved. Developed by Genesys Softwares