যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের বঙ্গবন্ধু একাডেমিক ভবনের গ্যালারিতে অ্যাকাউন্টিং অ্যান্ড ইনফরমেশন সিস্টেমস আয়োজিত ইনটেলেক্টচুয়াল প্রোপার্টি রাইট বিষয়ক এক সেমিনার অনুষ্ঠিত হয়।

নবীনরাই কেবল পরিবর্তন আনতে পারে: যবিপ্রবি ভিসি 

 

যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (যবিপ্রবি) উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো: আনোয়ার হোসেন বলেছেন, শিক্ষা, গবেষণাসহ সব খাতের পরিবর্তন আনতে পারে কেবল নবীনরাই। আশা করি, পরিবর্তনের মাধ্যমে আমাদের নবীন শিক্ষকেরা যবিপ্রবি তথা বাংলাদেশের মান-মর্যাদা সামনের দিকে আরও এগিয়ে নিয়ে যাবে।

 

আজ বুধবার দুপুরে বিশ্ববিদ্যালয়ের বঙ্গবন্ধু একাডেমিক ভবনের গ্যালারিতে অ্যাকাউন্টিং অ্যান্ড ইনফরমেশন সিস্টেমস বিভাগ আয়োজিত ইনটেলেক্টচুয়াল প্রোপার্টি রাইট বিষয়ক এক সেমিনারে সভাপতির বক্তব্যে অধ্যাপক ড. আনোয়ার হোসেন এসব কথা বলেন।

অধ্যাপক ড. মো: আনোয়ার হোসেন বলেন, আমরা এখন নিম্ন মধ্যম আয়ের দেশে অবস্থান করছি। যেভাবে আমাদের অর্থনৈতিক অগ্রগতি হচ্ছে, আশা করি অচীরেই আমরা মধ্যম আয়ের দেশে উন্নীত হবো। তখন আমাদের সম্মান বাড়বে। এই সম্মান বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে আমাদের ইনটেলেক্টচুয়াল প্রোপার্টি রাইট, পেটেন্ট, কপি রাইট, ট্রেডমার্ক, জিওগ্রাফিক্যাল ইন্ডিকেশন প্রভৃতি বিষয়ে সচেতন হতে হবে।

সেমিনারে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ভারতের পুনে বিশ^বিদ্যালয়ের শিক্ষক অধ্যাপক ড. অভিষেক চৌধুরী। মূল প্রবন্ধে তিনি ইনটেলেক্টচুয়াল প্রোপার্টি রাইট, পেটেন্ট, কপি রাইট, ট্রেডমার্ক, জিওগ্রাফিক্যাল ইন্ডিকেশনের বিষয়গুলোর গুরুত্ব এবং প্রয়োজনীয়তা বিস্তারিতভাবে তুলে ধরেন। কোন পদ্ধতিতে এ বিষয়গুলোর সর্বোচ্চ সুবিধা পাওয়া যাবে, সেসব বিষয়ে সবাইকে স্পষ্ট ধারণা দেন।

অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য দেন ব্যবসায় শিক্ষা অনুষদের ডিন অধ্যাপক ড. মো: জিয়াউল আমিন, প্রধান অতিথিকে দর্শকের সঙ্গে পরিচয় করিয়ে দেন অ্যাকাউন্টিং অ্যান্ড ইনফরমেশন সিস্টেমস বিভাগের চেয়ারম্যান ড. মো: মেহেদী হাসান। অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন অ্যাকাউন্টিং অ্যান্ড ইনফরমেশন সিস্টেম বিভাগের সহকারী অধ্যাপক ড. মো: কামাল হোসেন।